নীড় / টিউটোরিয়াল / ওয়েব ডেভেলপমেন্ট / শীর্ষ ১০টি ওয়েব ডিজাইনার এবং ডেভেলপার টুল.!
ওয়েব ডিজাইনার

শীর্ষ ১০টি ওয়েব ডিজাইনার এবং ডেভেলপার টুল.!

আজ আমি সব ওয়েব ডেভেলপারদের জন্য ওয়েবসাইট বা অ্যাপ শেয়ার করছি যা ওয়েবসাইট ডিজাইন এবং ডিজাইনের কোম্পানী। এই টুল ব্যবহার করে ওয়েব ডেভেলপাররা তাদের কাজটি সহজেই, সময়মত এবং সম্পূর্ণভাবে করতে পারবে যেমনটি তারা চায় অর্থাৎ তাদের মনের মত টুল।

এই টুল গুলোর বর্ণনা ভিডিও আকারে লেখার শেষে দেয়া আছে দেখতে পারেন। আর টুল গুলো সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে নামের শিরোনামের লিঙ্ক গুলো ব্যবহার করতে পারেন। চলুন দেখি কি কি টুল আছেঃ

১) পেমো অ্যাপ / Paymoapp
পেমো একটি অনলাইন প্রজেক্ট ম্যানেজমেন্ট অ্যাপ্লিকেশন যা ওয়েব ডিজাইন এবং ডেভেলপমেন্ট, ক্রিয়েটিভ এজেন্সি, সফটওয়্যার এবং আইটি সার্ভিসেস, স্থাপত্য ও নির্মাণ, লিগ্যাল সার্ভিসেস, মার্কেটিং এবং সোশ্যাল মিডিয়া বা বিজনেস কনসালটেন্টের মতো জায়গাগুলিতে ব্যবহৃত হয়।এই পেমো অ্যাপ টুলস প্রধানত আপনার টিমকে  টাইমসাইট ব্যবস্থাপনা ও প্রকল্প অ্যাকাউন্টিং ইত্যাদি বিষয়ে সাহায্য করে।যা আপনাকে আপনার বিভিন্ন প্রকল্প পরিচালনা সহজ ও সাবলীল করে তুলবে।

২) ক্রিয়েটলি / Creately
এক ওয়েব ডেভেলপারকে বিভিন্ন ডায়াগ্রাম, সাইট ম্যাপ ইত্যাদিতে কাজ করতে হয়। সৃজনশীল ডায়াগ্রামিং সরঞ্জামগুলি এটি করার জন্য সবচেয়ে সহজতম একটি। এই ক্রিয়েটলি টুল দিয়ে, আপনি সাধারণত ডাটাবেস, সাইটম্যাপ বা এমনকি একটি ইউআই বা ইউএমএল মেকআপ ডায়াগ্রাম তৈরি করতে পারেন।

৩) টিম গান্ট্ট / Team Gantt
এই টিম গান্ট্ট অ্যাপ্লিকেশন দিয়ে আপনি আপনার প্রকল্পের ই-মেইলগুলির মাধ্যমে বিভিন্ন জিনিস আপডেট করতে পারেন। এই টিম গান্ট্ট আপনার টাস্কের নির্ভরযোগ্যতা তৈরি এবং প্রকল্প বেসলাইন স্থাপন করতে সাহায্য করবে।

৪) রাইক/Wrike
রাইক একটি প্রকল্পের ম্যানেজমেন্ট সফ্টওয়্যার। এটি ব্যবহারকারীকে প্রকল্প, সময়সীমা, সময়সূচী এবং অন্যান্য কাজের কার্যক্রম পরিচালনা এবং ট্র্যাক করতে সহায়তা করে। এই টুল বর্তমানে প্রায় ৪৭,০০০ এর ও বেশি কোম্পানি ব্যবহার করে।

৫) নোটিজম টুল /Notism tool
নোটিজম একটি ভিজ্যুয়াল ডিজাইন ফিডব্যাক টুল। এটি আপনাকে একটি সহজ, কার্যকর এবং সামঞ্জস্যপূর্ণ নকশা তৈরি করতে সাহায্য ও সহজ করে দেয়। আর এর ধারা যে প্রোটোটাইপ গুলো তৈরি করবেন সেগুলোতে অনেক অসাধারন কিছু যুক্ত করার ফিচার পাবেন।

৬) ক্রাউডবেস/Crowdbase
ক্রাউডবেস এমন একটি সিস্টেম যা ব্যবহারকারীদেরকে সর্বাধিক দক্ষতার সাথে প্রাসঙ্গিক ধারণা এবং তথ্য একত্রিত ও ব্যবস্থাপনাকে সহজ করে দেয়। তারপর তা নিরাপদভাবে তাদের একটি খুব ব্যক্তিগত এবং নিরাপদ পরিবেশে সংরক্ষণ করে এবং টীমে শেয়ার করে। ক্রাউডবেস প্রতিষ্ঠাতা তার নিজের অ্যালগরিদম এবং প্রযুক্তির দ্বারা জ্ঞানকে তথ্যকে সহজ এবং ঝামেলা ছাড়া শেয়ার করতে দেয়। এর ফলে আপনার দলের সদস্যদের কাজের গতি বৃদ্ধি পাবে, এবং কাজের প্রতি সঠিক ধারনার জন্ম দিবে।

৭) কাজুয়াল / Casual
এটি আপনাকে আরও টেমপ্লেট তৈরি করতে, চাক্ষুষ পণ্যগুলির রাস্তার মানচিত্র তৈরি করতে এবং ফ্লোরাইটিং অঙ্কন ইত্যাদি তৈরি করতে এবং আরও সুন্দর এবং হালকা জিনিসগুলি করতে দেয়। আর তৈরি হবার পর সেগুলোকে কাজুয়ালেই সংরক্ষণ করার সুবিধা পাবেন।

৮) টিমফোকাস/ Teamfocus
টিমফোকাস আপনাকে আপনার সহকর্মীদের সাথে সংযুক্ত থাকার এবং একটি নির্দিষ্ট সময়সীমার মধ্যে আপনার প্রকল্পটি শেষ করতে সহায়তা করে। আপনি টিমফোকাস এর মাধ্যমে আপনার সহকর্মীদের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ রেখে সুন্দর কাজের পরিবেশ তৈরি করতে পারেন।

৯) গ্লাসকিউবস /Glasscubes
আপনার কাজের প্রয়োজনে আপনি সহকর্মী, ক্লায়েন্ট বা অন্য অংশীদারদের সাথে সংযোগ স্থাপন করেন, ও প্রয়োজনে তথ্য সংরক্ষণ ও শেয়ারিং করেন। আর এজন্যই গ্লাসকিউবস নিশ্চিত করে যে আপনি সবগুলি কাজ জাতে সর্বাধিক ফলপ্রসূ উপায়ে একসঙ্গে কাজ করতে পারেন। এই সব সুবিধার জন্যই এখন এই টুল বিভিন্ন ইউনিভার্সিটি, এলজি সহ অনেক বড় বড় প্রতিষ্ঠানে ব্যাবহৃত হচ্ছে।

১০) রেডবুথ / Redbooth
আমার শেষ টুলটি হল রেডবুথ। রেডবুথ ব্যস্ত টীম গুলোর সহজে ব্যবহারযোগ্য অনলাইন টাস্ক এবং প্রজেক্ট ম্যানেজমেন্ট সফ্টওয়্যার। এটি আপনার কোম্পানির অনেক গুরুত্বপূর্ণ ফাইল হোস্ট করার জন্য 256-বিট এনক্রিপশন ব্যবহার করে। এর দ্বারা আপনি আপনার তথ্যের ৫ গুণ বেশি নিরাপত্তা বৃদ্ধি করতে পারবেন।

সম্বন্ধে রাইহান ইসলাম

এছাড়াও পড়ুন

Blog

আপনার ব্লগকে সার্চ রেজাল্টে প্রথম পেইজে নিয়ে আসার উপায়সমূহ.!

প্রত্যেক ব্লগারের স্বপ্ন থাকে তার ব্লগকে সার্চ রেজাল্টের প্রথম পেইজে নিয়ে আসা। তবে এটি খুব …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 − one =