নীড় / জেনে নিন / আগুন নেভানো হয় কেমন করে?
আগুন নেভানো হয় কেমন করে?

আগুন নেভানো হয় কেমন করে?

আগুন নেভানোর জন্য সাধারনত: জল ব্যবহার করা হয়ে থাকে। কোন বাড়ী কিংবা দোকানে আগুন লাগলে দমকরবাহিনী সেখানে গিয়ে জলের সাহায্যে আগুন নেভানোর চেষ্টা করে। যেখানে দমকলবাহিনী নেই সেখানে লোকেরা আগুন নিভাতে গিয়ে বালতি বা অন্য পাত্রে করে জল নিযে যায়। তোমরা কি জান—জল কেমন করে আগুনকে নেভায়?

ব্যাপরটা বুঝতে হলে প্রথমে আগুনের প্রকৃতি ও ধর্ম সম্বন্ধে জানা দরকার।আগুন হল এমন এক রাসায়নিক বিক্রিয়া যাতে তাপ ও আলো উৎপন্ন হয়। প্রজ্বলনের (combustion) তিনটি প্রয়োজনীয় শর্ত আছে। প্রথমত, কোন জ্বালানীর (fuel) উপস্থিতি অবশ্যই দরকার। কাঠ, কাগজ, কয়লা প্রভৃতি হল জ্বালানীর উদাহরণ। দ্বিতীয়ত অক্সিজেনের ভাল সরবরাহ থাকা প্রয়োজন। তৃতীয়ত জ্বালানীকে তাপ দিতে থাকতে হবে যতক্ষণ পর্যন্ত না সে তার প্রজ্বলন তাপমাত্রা পৌছাতে পারে। কোন বস্তু জ্বালাবার ক্ষেত্রে তার একটা নিদির্ষ্ট তাপমাত্রা থাকে, যে তাপমাত্রায় পৌছালে বস্তুটি প্রজ্বলিত হয়ে উঠে। ঐ তাপমাত্রাকে বলে প্রজ্বলন তাপমাত্রা। জ্বালানী যখন প্রজ্বলন বিন্দুতে আসে তখন সে জ্বলা আরম্ভ করে। অবশ্য বায়ু মন্ডলের অক্সিজেনের সাহায্যেই তার জ্বলনটি সম্পাদিত হয়।

সুতরাং তিনটি ভিন্ন ভিন্ন উপায়ে আগুন নেভানো যেতে পারে । উপায়গুলিতে আগুন জ্বালাবার প্রয়োজনীয় তিনটি শতের্র যে কোন একটি অপসারণ করা হয়। প্রথমতঃ জ্বালানীকে সারয়ে ফেলা। দ্বিতীয়তঃ অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ করা। তৃতীয়তঃ আগুনের তাপ কমিয়ে আনা যাতে তাপমাত্রা প্রজ্বলন তাপমাত্রার নিচে নেমে আসে। আগুনের উপর যখন জল ছিটাণো হয় তখন তাপমাত্রার হ্রাস ঘটে। জ্বলন্ত পদার্থ থেকে জল তাপমাত্রা শোষণ করে বলে তার তাপমাত্রা কমে যায়। তাপমাত্রা একবার প্রজ্বলন তাপমাত্রার নীচে এসে গেলে জ্বারানী আর জ্বলে না। ছিটিয়ে জল ঢালা আগুন নেভানোর জন্য বেশি কার্যকারী।

তেলের আগুনের ক্ষেত্রে তেল জলের চেয়ে হালকা হওয়ায় জলের উপর তা ভেসে ওঠে। সেক্ষেত্রে জল ছিটিয়ে আগুন নেভাতে গেলে আগুন আরও বেশী জায়গায় ছড়িয়ে পড়তে পারে। জল দিয়ে বিজলীর আগুন নেভাতে গেলে তড়িতাহুত হওয়ার সম্ভবনা থাকে। এই ধরনের আগুন নেভাতে কার্বন-ডাই-অক্সাইড অগ্নি-নির্বপক যন্ত্রের ব্যবহার করা হয়। কার্বন-ডাই-অক্সাইড অক্সিজেনর সরবরাহকে আটকে দেয়। তার ফলে আগুন ও আর জ্বলতে পারে না।

সম্বন্ধে লিপি

এছাড়াও পড়ুন

স্মার্ট ফোন

পুরানো স্মার্টফোন কেনার আগের ৫টি গুরুত্তপূর্ণ টিপস.!

আজকে আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করবো একটা পুরাতন স্মার্ট মোবাইল কেনার আগের কিছু গুরুত্তপূর্ণ টিপস …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

20 − 11 =